• বুধবার   ২১ অক্টোবর ২০২০ ||

  • কার্তিক ৫ ১৪২৭

  • || ০৪ রবিউল আউয়াল ১৪৪২

আজকের পটুয়াখালী
ব্রেকিং:
১২ বছরের ব্যর্থতার জন্য বিএনপির নেতৃত্বের পদত্যাগ করা উচিত বিদেশে পালালেও এসআই আকবরকে ফিরিয়ে আনা হবে: পররাষ্ট্রমন্ত্রী পরিপত্র জারি : ৭ মার্চকে ঐতিহাসিক দিবস ঘোষণা করোনায় ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু ২১, শনাক্ত ১৬৩৭ জনগণের ভাষা বুঝে না বলেই বিএনপি ব্যর্থ: কাদের ৭ কার্যদিবসেই শিশু ধর্ষণ মামলার রায়, আসামির যাবজ্জীবন ২৫ টাকা কেজিতে আলু বিক্রি করবে টিসিবি: বাণিজ্যমন্ত্রী পবিত্র ঈদ-ই-মিলাদুন্নবী ৩০ অক্টোবর সরকারের আশ্বাসে ইন্টারনেট-ডিশ সংযোগ ধর্মঘটের সিদ্ধান্ত স্থগিত ইন্টারনেট-ক্যাবল টিভি বন্ধের সিদ্ধান্ত স্থগিত করোনায় ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু ২৩, শনাক্ত ১২০৯ ৬০ মিশনে দূতাবাস অ্যাপ চালু করা হয়েছে: পররাষ্ট্রমন্ত্রী বাংলাদেশ সঠিক পথেই হাঁটছে: তাজুল ইসলাম করোনায় ২৪ ঘণ্টায় ১৫ জনের মৃত্যু, শনাক্ত ১৬০০ টাঙ্গাইলে গণধর্ষণ মামলায় ৫ জনের মৃত্যুদণ্ড ভূমিহীনদের ২ শতাংশ জমি দেয়া হবে: ত্রাণ প্রতিমন্ত্রী টেকনাফে সমুদ্র থেকে বাংলাদেশি ৭ জেলে উদ্ধার করোনায় ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু ৩১, শনাক্ত ১৪৭২ পাপিয়া দম্পতির ২৭ বছরের কারাদণ্ড আইন সংশোধনে প্রধানমন্ত্রী নিজেই উদ্যোগ নিয়েছেন: কাদের

আর্মেনিয়ার গোলায় ১৩ সাধারণ নাগরিক নিহত : আজারবাইজান

আজকের পটুয়াখালী

প্রকাশিত: ১৭ অক্টোবর ২০২০  

গানজা শহরে আর্মেনিয় সেনাদের গোলায় বাড়িঘর ধ্বংস হওয়া ছাড়াও কমপক্ষে ১৩ জন সাধারণ নাগরিক নিহত হয়েছেন বলে জানিয়েছে আজারবাইজান। এ ছাড়া আহত হয়েছেন আরও ৪০ জন। বিতর্কিত নাগোরনো-কারাবাখ অঞ্চল নিয়ে প্রতিবেশী দুই দেশের মধ্যে চলমান যুদ্ধ-সংঘাতের মধ্যে এ হতাহতের খবর জানা গেল।

ব্রিটিশ দৈনিক গার্ডিয়ানের অনলাইন প্রতিবেদন অনুযায়ী আজারবাইজানের প্রসিকিউটর জেনারেলের কার্যালয় জানিয়েছে, দেশের দ্বিতীয় বৃহত্তম শহর গানজার দুটি আবাসিক ভবনে আর্মেনিয়ার গোলা আঘাত হানলে এই হতাহতের ঘটনা ঘটে। তবে আর্মেনিয়ার পক্ষ থেকে এখনও আনুষ্ঠানিক কোনো প্রতিক্রিয়া জানানো হয়নি।

গানজার অপর অংশে দ্বিতীয়বারের মতো হামলা হয়েছে শনিবার। এ ছাড়া তৃতীয় হামলাটি করা হয়েছে কাছাকাছি কৌশলগত শহর মিনজেসিভিরে। আজেরি বাহিনী বিচ্ছিন্নতাবাদী আর্মেনিয়া জাতিগোষ্ঠী শাসিত অঞ্চল নাগোরনো-কারাবাখের রাজধানী স্টেপানাকার্টে হামলা করার কয়েক ঘন্টা পর এই হামলা হয়।

গানজার সাংবাদিকরা বলছেন, আর্মেনিয়ার গোলার আঘাতে শহরের অনেক বাড়িঘর মুহূর্তেই ধ্বংসস্তুপে পরিণত হয়েছে। ছিন্নভিন্ন শরীরের বিভিন্ন অংশ কালো ব্যাগে করে বহন করতে দেখা গেছে উদ্ধারকর্মীদের। হামলায় বাড়িঘর দেয়াল আরও ছাদ ধসে পড়েছে। সেই ধ্বংসাবশেষে পূর্ণ হয়ে রয়েছে পাশের রাস্তুগুলো।

আন্তর্জাতিকভাবে অঞ্চলটি আজারবাইজানের হলেও দখলে রয়েছে আর্মেনিয়া খিস্টান জাতিগোষ্ঠীর। সম্প্রতি শুরু হওয়া এই যুদ্ধ-সংঘাত বন্ধে আন্তার্জাতিক পরিসরে যে চেষ্টা চলছে চলমান হামলা তা হুমকির মুখে ফেলেছে। এ ছাড়া দুই পক্ষের হয়ে সংঘাতে রাশিয়া ও তুরস্কের মুখোমুখি অবস্থান নেয়ার শঙ্কা তো রয়েছেই।