• রোববার   ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২১ ||

  • ফাল্গুন ১৬ ১৪২৭

  • || ১৬ রজব ১৪৪২

আজকের পটুয়াখালী
ব্রেকিং:
দেশে কোনো গরিব মানুষ থাকবে না : তথ্যমন্ত্রী বেসরকারি চিকিৎসা সেবা ব্যয় নির্ধারণ শিগগিরই: স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাটকা সংরক্ষণে কাল থেকে ৬ জেলায় মাছ ধরা নিষিদ্ধ করোনায় ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু ৮, শনাক্ত ৩৮৫ আমরা শিক্ষিত ও দক্ষ মানবসম্পদ গড়তে বদ্ধপরিকর: প্রধানমন্ত্রী শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খোলার ৬০ কর্মদিবস পর পরীক্ষা: শিক্ষামন্ত্রী এ এক বদলে যাওয়া বাংলাদেশ: প্রধানমন্ত্রী উন্নয়নশীল দেশে উত্তরণের কৃতিত্ব নতুন প্রজন্মের : প্রধানমন্ত্রী করোনায় ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু ৫, শনাক্ত ৪০৭ উৎসবমুখর পরিবেশে হবে ৫ম ধাপের পৌরসভা নির্বাচন: কাদের মুজিবনগর-কলকাতা স্বাধীনতা সড়কের কাজ শেষ পর্যায়ে: এলজিআরডি মন্ত্রী রেলে ১২ হাজার লোক নিয়োগ দেয়া হবে: রেলপথ মন্ত্রী করোনায় ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু ৫, শনাক্ত ৪১০ বঙ্গবন্ধুর পরিবার সততা, মেধা ও সাহসের প্রতীক: কাদের জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের স্থগিত পরীক্ষার সময়সূচি প্রকাশ সাত কলেজের পরীক্ষা চলবে: শিক্ষা মন্ত্রণালয় করোনায় ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু ৫, শনাক্ত ৪২৮ কেন্দ্রীয় পুলিশ হাসপাতালে সাধারণ মানুষও চিকিৎসা পাবেন: আইজিপি জনগণ ভালোবেসে আমাদের সরকার গঠনের সু্যোগ দিয়েছে: কাদের সাত কলেজের বিষয়ে সিদ্ধান্ত সন্ধ্যায়

জামায়াতকে নিয়ে ঐক্যবদ্ধ আন্দোলনের পরিকল্পনা বিএনপির

আজকের পটুয়াখালী

প্রকাশিত: ১৭ ফেব্রুয়ারি ২০২১  

বিএনপির প্রতিষ্ঠাতা জিয়াউর রহমানের বীর উত্তম খেতাব বাতিলকে কেন্দ্র করে জামায়াতকে সাথে নিয়ে সরকার হটানোর আহ্বান জানিয়েছেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য খন্দকার মোশাররফ হোসেন।

সাম্প্রতিক সময়ে বিএনপির যে আন্দোলনের হুংকার এবং সরকারবিরোধী বড় ধরনের যে আন্দোলন গড়ে তোলার চিন্তা ভাবনা এটি পুরোটাই জামায়াতের মস্তিষ্কের প্রসিত হিসেবে মনে করেন রাজনৈতিক পর্যবেক্ষক মহল। বিএনপিকে সামনে ঠেলে দিয়ে আসল ফাঁদ পাচ্ছে তারা। এবং সাম্প্রতিক সময়ে যা কিছু ঘটেছে সবকিছুতেই জামায়াত সম্পৃক্ত রয়েছে বলে মনে করেন তারা।

জামায়াত সরকারকে আল জাজিরা ইস্যু ও বিএনপির ইস্যুতে ব্যাস্ত রেখে নিজেদেরকে সাংগঠনিক শক্তিশালী করার চেষ্টা করে সরকারের বিরুদ্ধে একটি ভয়ংকর পরিকল্পনা আঁকছে বলে একাধিক সূত্র নিশ্চিত করেছে।

এদিকে মোশাররফ হোসেন জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে দলের প্রতিষ্ঠাতা জিয়াউর রহমানের ‘বীর উত্তম’ খেতাব বাতিলের প্রতিবাদে বিক্ষোভ সমাবেশে বলেন,‘‘ জিয়াউর রহমানই এদেশের মুক্তিযুদ্ধের সূচনা করেছেন। কার খেতাব আপনারা বাতিল করতে চান। এ জিয়াই এদেশের মুক্তিযুদ্ধের প্রথম সেক্টর কমান্ডার, উনি মুক্তিযুদ্ধে প্রথম ফোর্স ‘জেড’ ফোর্সের কমান্ডার। তার অর্জিত খেতাব বাতিলের অধিকার আপনাদের নাই, এ খেতাব বাতিলের অধিকার কারো নাই।”

খন্দকার মোশাররফ বলেন, “যারা চেষ্টা করছেন খেতাব বাতিল করার জন্য, তাদের পায়ের নিচে মাটি নাই। শেখ হাসিনার হাত থেকে যখন দেশকে মুক্ত করার জন্য  জনগণ রুখে দাঁড়িয়েছে, তখনই এ ষড়যন্ত্র। জামুকার (জাতীয় মুক্তিযোদ্ধা কাউন্সিল) কোনো এখতিয়ার নেই জিয়াউর রহমানের খেতাব বাতিলের।”

স্থায়ী কমিটির সদস্য গয়েশ্বর চন্দ্র রায় বলেন, “দেশটা ভাষণে স্বাধীন হয় নাই, দেশটা স্বাধীন হয়েছে যুদ্ধে। সেই একাত্তরের মুক্তিযুদ্ধে, সেই যুদ্ধের অপর নাম জিয়াউর রহমান। যুদ্ধ মানে জিয়া, গণতন্ত্র মানে জিয়া।”

মহানগর বিএনপি দক্ষিণের সভাপতি যুগ্ম মহাসচিব হাবিব উন নবী খান সোহেলের সভাপতিত্বে সমাবেশে বিএনপির এজেডএম জাহিদ হোসেন, আমান উল্লাহ আমান, আবদুস সালাম, হাবিবুর রহমান হাবিব, রুহুল কবির রিজভী, ফজলুল হক মিলন, শহিদউদ্দিন চৌধুরী এ্যানি, মীর সরফত আলী সপু, তাবিথ আউয়াল, ইশরাক হোসেন, মহানগর বিএনপির মুন্সি বজলুল বাসিত আনজু, যুবদলের সাইফুল ইসলাম নিরব, স্বেচ্ছাসেবক দলের আবদুল কাদির ভুঁইয়া জুয়েল, মহিলা দলের সুলতানা আহমেদসহ অনেকেই বক্তব্য রাখেন।