শনিবার   ২৩ নভেম্বর ২০১৯   অগ্রাহায়ণ ৮ ১৪২৬   ২৫ রবিউল আউয়াল ১৪৪১

আজকের পটুয়াখালী
ব্রেকিং:
কলকাতা থেকে দেশে ফিরলেন প্রধানমন্ত্রী চট্টগ্রামে হিযবুত তাহরীরের আঞ্চলিক প্রধান আটক সরকার আলেমদের সঙ্গে নিয়ে দেশের উন্নয়ন করতে চায়: ধর্ম প্রতিমন্ত্রী নরসিংদীর এমপি বুবলীকে আওয়ামী লীগ থেকে বহিষ্কার চালের বাজার অস্থিতিশীল করলে কাউকে ছাড় নয়: খাদ্যমন্ত্রী ভারত মুক্তিযুদ্ধের সময় পাশে ছিল তা ভুলিনি: প্রধানমন্ত্রী চিকিৎসকদের নৈতিক শিক্ষা খুবই প্রয়োজন: পরিকল্পনামন্ত্রী সামাজিক মাধ্যমে গুজব বন্ধে বিধিমালা হচ্ছে- তথ্যমন্ত্রী শুক্রবারের মধ্যে যান চলাচল স্বাভাবিক হবে: কাদের ঘণ্টা বাজিয়ে খেলার উদ্বোধন করলেন শেখ হাসিনা একুশ শতকের চ্যালেঞ্জ মোকাবিলায় সশস্ত্র বাহিনীকে গড়ে তোলা হবে দেশপ্রেমে উদ্বুদ্ধ হয়ে সশস্ত্র বাহিনীকে কাজ করার আহ্বান সড়ক পরিবহন আইনের অসঙ্গতি দূর করা হবে: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী ‘বিএনপি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে গুজব সৃষ্টি করছে’- কাদের অনার্স ২য় বর্ষের ২৫ নভেম্বরের পরীক্ষা স্থগিত কোন অপপ্রচারে কান না দিতে জনগণের প্রতি প্রধানমন্ত্রীর আহ্বান ‘গোলাপি’ যাত্রা রাঙ্গাতে কাল মাঠে নামছে বাংলাদেশ সারাবিশ্বে বাংলাদেশ এখন সম্মানের দেশ: প্রধানমন্ত্রী সশস্ত্র বাহিনী দিবসের সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে প্রধানমন্ত্রী আজ সন্ধ্যায় আ. লীগের অভ্যর্থনা উপকমিটির সভা
১৫৩

ভয়ঙ্কর এই মাছটি দেখামাত্রই মেরে ফেলুন (ভিডিও)

প্রকাশিত: ১৬ অক্টোবর ২০১৯  

আমরা জানি মাছ সাধারণত জলে বসবাস করে। কিন্তু যুক্তরাষ্ট্রের সমুদ্রবিজ্ঞানীরা এমন একটি মাছের সন্ধান পেয়েছেন যেটি কিনা তার বিশেষ শ্বাসতন্ত্রের মাধ্যমে ডাঙায়ও বেঁচে থাকতে পারে। অনেকটা সাপের মতো দেখতে এই মাছটির নাম ‘স্নেকহেড ফিশ’। মাছটিকে ভয়ংকর আখ্যায়িত করে দেখামাত্রই মেরে ফেলার পরামর্শ দিয়েছেন বিজ্ঞানিরা।

১৯৯৭ সালে প্রথমবারের মতো ক্যালিফোর্নিয়ার সান বার্নাডিনোর সিলভারহুড লেকে ধরা পড়ে স্নেকহেড ফিশ। সেসময় ধারণা করা হয়েছিল মাছটি পূর্ব এশিয়ার। কিন্তু এখন এটিকে জর্জিয়ায় পেয়ে অবাক হচ্ছেন বিজ্ঞানীরা।

২০০২ সালে স্নেকহেড ফিশ ধরা এবং বিক্রি বেআইনি বলে ঘোষণা করা হয়। সম্প্রতি মেরিল্যান্ড প্রকৃতি সংরক্ষণ বিভাগের বিজ্ঞানীরা গবেষণায় জানতে পেরেছেন, মাছটির শ্বাসতন্ত্র এমন বিশেষভাবে তৈরি যে তারা মানুষের মতোই বাতাস থেকে শ্বাস নিতে পারে। ফলে ডাঙায় জীবন ধারণ করতেও মাছের কোনো সমস্যা হয় না। তবে আচমকা পরিবেশ বদলের ফলে কিছুটা নিস্তেজ হয়ে পড়ে।

এই মাছের খাদ্য তালিকায় রয়েছে, জলাশয়ের অন্যান্য প্রাণী, ছোট মাছ, ছোট ইঁদুর। আর এই কারণেই অন্যান্য জলজ প্রাণীর কাছে এটি বিপদের কারণ।

লম্বায় তিন ফুটের কাছাকাছি মাছটি প্রায় ১৮ পাউন্ড ওজনের হয়। সেই সঙ্গে রয়েছে ধারালো দাঁত। যার সাহায্যে এরা শিকার করে থাকেন।

এই বিভাগের আরো খবর