• সোমবার   ২৫ অক্টোবর ২০২১ ||

  • কার্তিক ৯ ১৪২৮

  • || ১৬ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩

আজকের পটুয়াখালী
ব্রেকিং:
দেশের ভাবমূর্তি নষ্টকারীদের বিষয়ে সচেতন হতে হবে: প্রধানমন্ত্রী মাঝে মধ্যে কিছু ঘটিয়ে দেশের ভাবমূর্তি নষ্টের অপচেষ্টা হচ্ছে দৃষ্টিনন্দন পায়রা সেতুতে হাঁটতে পারলে ভালো লাগতো: প্রধানমন্ত্রী বাংলাদেশকে কেউ আর পিছিয়ে রাখতে পারবে না: প্রধানমন্ত্রী স্বপ্নের পায়রা সেতু উদ্বোধন ‘বাসযোগ্য গ্রহ থেকে অনেক অনেক দূরে রয়েছে বিশ্ব’ পায়রা সেতুর উদ্বোধন আজ, দক্ষিণাঞ্চলের আরেকটি স্বপ্নপূরণ নেতাকর্মীদের নজরদারি বাড়াতে বললেন শেখ হাসিনা কুমিল্লার ঘটনা দুঃখজনক, অপরাধীর বিচার হবে: প্রধানমন্ত্রী ‘দেশের সবচেয়ে বড় রপ্তানি পণ্য হবে ডিজিটাল ডিভাইস’ সরকারের ধারাবাহিকতা আছে বলেই উন্নয়ন সম্ভব হচ্ছে: প্রধানমন্ত্রী বিদেশে বিনিয়োগের প্রস্তুতি নিচ্ছে বাংলাদেশ: প্রধানমন্ত্রী প্রধানমন্ত্রী পূর্বাচলে প্রদর্শনীকেন্দ্র উদ্বোধন করবেন আজ স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়কে কঠোর নির্দেশ প্রধানমন্ত্রীর সাম্প্রদায়িক অপশক্তির তৎপরতা প্রতিরোধের নির্দেশ প্রধানমন্ত্রীর ‘এমন বাংলাদেশ গড়তে চাই, যেখানে শিশুরা বড় হবে সুন্দর পরিবেশে’ একটা অসাম্প্রদায়িক চেতনায় বাংলাদেশকে গড়তে চাই: প্রধানমন্ত্রী আমাদের ছোট রাসেল সোনা: শেখ হাসিনা শেখ রাসেলের ৫৮তম জন্মদিন করোনাকালে ১৬০০ ভার্চুয়াল সভায় অংশ নিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী

২১০০ সালের ডেলটা প্রকল্প তৈরির জন্য গবেষক নিয়োগ দেওয়া হয়েছে

আজকের পটুয়াখালী

প্রকাশিত: ১১ অক্টোবর ২০২১  

পটুয়াখালী প্রতিনিধিঃ ধর্ম বিষয়ক প্রতিমন্ত্রী মো. ফরিদুল হক খান বলেছেন, বিশ্বের কোন রাষ্ট্র প্রধান আগামী ২১০০ সালে মানুষের কি হবে এ নিয়ে চিন্তা করে নাই। কিন্তু প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা তা নিয়ে ভেবেছেন। প্রধানমন্ত্রী ইতোমধ্যে বিশ্বায়ন উপযোগী ডেলটা প্রকল্প গ্রহণ করেছেন। ২১০০ সালের ডেলটা প্রকল্প তৈরির জন্য গবেষক নিয়োগ দেওয়া হয়েছে। রবিবার (১০ অক্টোবর) বেলা ১১ টায় ইসলামি ফাউন্ডেশনের মিলনায়তনে আয়োজিত ধর্মীয় সম্প্রতি ও সচেতনতামূলক দিনব্যাপী প্রশিক্ষণে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এ কথা বলেন।

প্রতিমন্ত্রী আরও বলেন, ২১০০ সালে বাংলাদেশের জনসংখ্যা ৪০ কোটি হলে ছোট্ট এ ভূখন্ডে মানুষের বাঁচার সকল কিছু থাকবে।

এসময় উপস্থিত ছিলেন মহিলা সাংসদ কাজী কানিজ সুলতানা হেলেন, জেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি কাজী আলমগীর, সাধারণ সম্পাদক ভিপি আবদুল মান্নান, পৌর মেয়র মহিউদ্দিন আহমেদ, পুলিশ সুপার মোহাম্মদ শহীদুলস্নাহ্‌, সিভিল সার্জন ডা. মোহাম্মদ জাহাঙ্গীর আলম শিপন, ইসলামিক ফাউন্ডেশনের উপ-পরিচালক মোহাম্মাদ মাহাবুবুল আলম প্রমুখ।

সম্প্রীতি ও সচেতনতামূলক দিনব্যাপী প্রশিক্ষণে জেলার বিভিন্ন মসজিদের ২ শতাধিক ইমাম উপস্থিত ছিলেন।

এর আগে মন্ত্রী ধর্মীয় সম্প্রীতি ও সচতনেতামূলক প্রচারণার অংশ হিসাবে কুয়াকাটায় আন্তঃ ধর্মীয় সংলাপে অংশ গ্রহন করেন। শনিবার রাত ৮টায় কুয়াকাটার একটি আবাসিক হোটেলের হলরুমে এ সংলাপের আয়োজন করে ধর্ম বিষয়ক মন্ত্রণালয়। অতিরিক্তি জেলা প্রশাসক হুমায়ুন কবিরের সভাপতিত্বে  সংলাপ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন ধর্ম বিষয়ক প্রতিমন্ত্রী মো. ফরিদুল হক খান।

উপস্থিত ছিলেন কলাপাড়া সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আহম্মদ আলী, কুয়াকাটা পৌর মেয়র আনোয়ার হাওলাদার, বৌদ্ধধর্ম কৃষ্টি প্রচার সংঘ পটুয়াখালী জেলা কমিটির সভাপতি নেউ নেউ খেইন। সংলাপে স্থানীয় মুসল্লী, হিন্দু, বৌদ্ধ ধর্মীয় প্রতিনিধিসহ উপজলো আওয়ামীলীগের নেতৃবৃন্ধ অংশগ্রহন করেন।