• বৃহস্পতিবার   ০২ ডিসেম্বর ২০২১ ||

  • অগ্রাহায়ণ ১৮ ১৪২৮

  • || ২৫ রবিউস সানি ১৪৪৩

আজকের পটুয়াখালী
ব্রেকিং:
বাংলাদেশ আর পিছিয়ে যাবেনা, এগিয়ে যাবে : প্রধানমন্ত্রী যে কোনো চ্যালেঞ্জ মোকাবিলায় বাংলাদেশ সদাপ্রস্তুত পার্বত্য শান্তিচুক্তির ফলে দীর্ঘদিনের সংঘাতের অবসান ঘটে পার্বত্য শান্তিচুক্তি বিশ্বের ইতিহাসে বিরল ঘটনা: প্রধানমন্ত্রী ব্যবসায়ীদের দেশের মানুষের পাশে দাঁড়ানোর আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর ২৪ বছরে পার্বত্য শান্তি চুক্তি আইন নিজের হাতে তুলে নেবেন না: প্রধানমন্ত্রী গাড়ি ভাঙচুর-আগুন দিলেই ব্যবস্থা: প্রধানমন্ত্রী বঙ্গবন্ধুর ম্যুরাল উদ্বোধন ও জয়িতা টাওয়ারের ভিত্তি স্থাপন সব গণতান্ত্রিক আন্দোলনে নেতৃত্ব দিয়েছে ঢাবি: প্রধানমন্ত্রী রোহিঙ্গা ইস্যুতে জাতিসংঘ বাংলাদেশকে অব্যাহত সমর্থন দেবে ওমিক্রন: করণীয় নির্ধারণে বৈঠকে ১৮ মন্ত্রণালয় রাজস্ব বোর্ডকে সেবাধর্মী, জনবান্ধব ও করদাতাবান্ধব করেছে সরকার ষড়যন্ত্র থাকবে, তবু দেশ এগিয়ে যাবে: প্রধানমন্ত্রী বৈদেশিক বিনিয়োগে বাংলাদেশের গুরুত্ব দিন দিন বাড়ছে: প্রধানমন্ত্রী অর্থনৈতিক অঞ্চলসমূহে ২৭ বিলিয়ন ডলারের বিনিয়োগ প্রস্তাব পেয়েছি বিনিয়োগ শীর্ষ সম্মেলন উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী বিজনেস সামিট বিনিয়োগ বাজার তৈরি করবে: প্রধানমন্ত্রী তৃতীয় ধাপে এক হাজার ইউপিতে ভোটগ্রহণ শুরু ‘গণতন্ত্র পুনরুদ্ধারে ডা. মিলনের আত্মত্যাগ নতুন গতি সঞ্চারিত করে’

সময়ের সঙ্গে কৌশল পাল্টাচ্ছে প্রশ্নফাঁস চক্র

আজকের পটুয়াখালী

প্রকাশিত: ২৫ নভেম্বর ২০২১  

সময়ের সঙ্গে কৌশল পাল্টাচ্ছে প্রশ্নফাঁস চক্রের সদস্যরা। আগে পরীক্ষা চলাকালে ডিভাইসের মাধ্যমে উত্তর দিত চক্র। এখন প্রশ্ন তৈরিতে যারা যুক্ত, তাদের মাধ্যমে ফাঁস করা হচ্ছে প্রশ্ন। প্রার্থীদের প্রশ্ন না দিয়ে পরীক্ষা শুরুর আগে মুখস্থ করানো হচ্ছে উত্তর। পরামর্শ দেওয়া হয় শতভাগ প্রশ্নের উত্তর না দিতে। বিভিন্ন সময় আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর হাতে আটকদের স্বীকারোক্তির ভিত্তিতে এ কথা জানিয়েছে পুলিশ।

২০২০ সালে একটি চক্রকে গ্রেপ্তারের পর প্রশ্নফাঁসের অভিনব কৌশলের কথা জানতে পারে পুলিশের অপরাধ তদন্ত বিভাগ (সিআইডি)। চক্রটি পরীক্ষা শুরুর পর কেন্দ্র থেকে ডিভাইসের মাধ্যমে দ্রুত প্রশ্ন পাঠাত। পরে কোচিং সেন্টারের অভিজ্ঞ শিক্ষকের মাধ্যমে প্রশ্ন দ্রুত সমাধান করে কেন্দ্র পাঠিয়ে দিত উত্তর।

সাইবার পুলিশ সেন্টার অতিরিক্ত ডিআইজি কামরুল আহসান বলেন, ২০২০ সাল থেকে একটি চক্র প্রশ্নফাঁসের করে আসছে। তারা নতুন নতুন অভিনব কৌশল করে এই কাজগুলো করে যাচ্ছে। তাদের আমরা গ্রেপ্তারের আওতায় নিয়ে আসছি।

পরীক্ষার হলে ডিজিটাল ডিভাইস ব্যবহার বন্ধের পর কৌশল পাল্টায় প্রশ্নফাঁস চক্রের সদস্যরাও। শুরু হয়, প্রশ্ন প্রণয়নে যুক্তদের হাত করার প্রক্রিয়া। চাকরিপ্রত্যাশীদের হাতে প্রশ্ন না দিয়ে পরীক্ষার আগের রাতে বা পরীক্ষার ঠিক আগ মুহূর্তে নির্দিষ্ট স্থানে একত্র করে মুখস্থ করানো হয় উত্তর। সন্দেহ এড়াতে পরামর্শ দেওয়া হয় শতভাগ প্রশ্নের উত্তর না দিতে।

সম্প্রতি আদালতে স্বীকারোক্তি দিয়েছে প্রশ্নফাঁস চক্রের পাঁচ সদস্য। আহসানউল্লাহ ইউনিভার্সিটির নেওয়া চাকরির পরীক্ষাগুলোয় কোনো অনিয়ম হয়েছে কি না তারও তদন্ত করছে পুলিশ।

তেজগাঁও বিভাগের ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশের উপপুলিশ কমিশনার ওয়াহিদুর রহমান বলেন, প্রশ্নফাঁসের ঘটনায় সম্প্রতি ১১ জনকে আটক করেছে পুলিশ।