• সোমবার   ১৬ মে ২০২২ ||

  • জ্যৈষ্ঠ ২ ১৪২৯

  • || ১৩ শাওয়াল ১৪৪৩

আজকের পটুয়াখালী
ব্রেকিং:
উৎপাদন বাড়ানোর পাশাপাশি খাদ্য সাশ্রয় করুন: প্রধানমন্ত্রী সবাই স্বাধীনভাবে সরকারের সমালোচনা করতে পারে: প্রধানমন্ত্রী ‌ঢাকায় বসে সমালোচনা না করে গ্রামে ঘুরে আসুন বঙ্গবন্ধুর নাম কেউ মুছে ফেলতে পারবে না: প্রধানমন্ত্রী আমিরাতের নতুন প্রেসিডেন্টকে রাষ্ট্রপতির অভিনন্দন শেখ হাসিনাকে স্পেনের সরকার প্রধানের শুভেচ্ছা পি কে হালদার গ্রেফতার নানামুখী ষড়যন্ত্র হচ্ছে, সতর্ক থাকতে বললেন প্রধানমন্ত্রী বাংলাদেশকে সমর্থন দেওয়ার প্রত্যয় এডিবির ভাইস প্রেসিডেন্টের আরব আমিরাতের প্রেসিডেন্টের মৃত্যুতে রাষ্ট্রপতির শোক আমিরাতের প্রেসিডেন্টের মৃত্যুতে প্রধানমন্ত্রীর শোক বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট-১ উৎক্ষেপণের চার বছর পূর্তি আজ নারী খেলোয়াড়দের আরও সুযোগ দিতে হবে: প্রধানমন্ত্রী ‘খেলাধুলা ও সাংস্কৃতিক চর্চা একটি জাতির জন্য অপরিহার্য’ ফ্ল্যাটে বাস করে শিশুরা ফার্মের মুরগির মতো হয়ে যাচ্ছে: প্রধানমন্ত্রী জাতীয় ক্রীড়া পুরস্কার দেয়া হচ্ছে ৮৫ ক্রীড়া ব্যক্তিত্বকে রাষ্ট্রপতির সাজেক সফর স্থগিত একনেকে ৫ হাজার ৮২৫ কোটি টাকার ১১ প্রকল্প অনুমোদন যুক্তরাষ্ট্র থেকে বর্ধিত বিনিয়োগ চান প্রধানমন্ত্রী যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে মুক্ত বাণিজ্য চুক্তি করতে প্রস্তুত বাংলাদেশ: প্রধানমন্ত্রী

দুমকিতে ইউনিয়ন বিএনপির কমিটি থেকে পদত্যাগের হিড়িক

আজকের পটুয়াখালী

প্রকাশিত: ১০ মে ২০২২  

জ্যেষ্ঠ নেতাদের মূল্যায়ন না করার প্রতিবাদে পটুয়াখালীর দুমকি উপজেলার মুরাদিয়া ইউনিয়ন বিএনপির নতুন কমিটি থেকে পদত্যাগ করেছেন পাঁচ নেতা। এ ছাড়া জানা যায় আরও অনেক নেতৃবৃন্দ পদত্যাগ করবেন।

গতকাল শনিবার বিকেলে মুরাদিয়া ইউনিয়ন বিএনপির কমিটির সহসভাপতি সৈয়দ মাহাতাব উদ্দিন, মো. হুমায়ুন কবির হাওলাদার, সদস্য আবদুস সাত্তার হাওলাদার, সৈয়দ আসাদুজ্জামান (জুয়েল), মো. মাসুম আকন পদত্যাগ করেন। তারা সকলেই মুরাদিয়া ইউনিয়ন বিএনপির সভাপতি না হয় সাধারণ সম্পাদকের নিকট পদত্যাগপত্র জমা দিয়েছেন।

পদত্যাগের কারণ জানতে চাইলে সৈয়দ মাহাতাব উদ্দিন ও মো. হুমায়ুন কবির বলেন, ‘২০০১ সালে যখন বিএনপি ক্ষমতায় ছিল তখন বর্তমান সভাপতি তরিকুল ইসলাম (তারেক) মিথ্যা মামলা দিয়ে আমাদের হয়রানি করেছিলেন। এ ছাড়া ত্যাগীদের মূল্যায়ন না করে অর্থের বিনিময় এই কমিটি দেওয়া হয়েছে। তাই কমিটির অবকাঠামোতে স্বপদে বহাল থেকে সাংগঠনিক কার্যক্রম করা কোনোক্রমেই সম্ভব নয়। তাই আমার পদ থেকে আমি পদত্যাগ করলাম।’

এ বিষয়ে পদত্যাগকৃত সদস্য মো. মাসুম আকন (মাস্টার) বলেন, ‘আমি আগে দল করলেও এখন আমি কোনো দলের সঙ্গে সম্পৃক্ত নই। আমাকে না জানিয়ে কমিটিতে নাম রাখা হয়েছে। তাই আমি পদত্যাগ করেছি।’

পাঁচ নেতার পদত্যাগের বিষয়ে জানতে চাইলে মুরাদিয়া ইউনিয়ন বিএনপির সভাপতি তরিকুল ইসলাম (তারেক) বলেন, ‘আমরা এখনো পদত্যাগপত্র হাতে পাইনি। লোকের মুখে শুনেছি তারা পদত্যাগ করেছেন। এ ছাড়া আমার বিষয়ে যে অভিযোগগুলি করেছেন সেগুলো সম্পূর্ণ ভিত্তিহীন।’

উপজেলা বিএনপি’র আহ্বায়ক মো. খলিলুর রহমান জানান, নিয়ম অনুযায়ী তারা পদত্যাগ পত্র আমাদের কাছে জমা দেবেন। আর তারা যেসব অভিযোগ এনেছেন সেগুলোর যদি উপযুক্ত প্রমাণ দিতে পারেন তাহলে আমরা সেসব অভিযোগের বিষয়ে সাংগঠনিক ব্যবস্থা গ্রহণ করব।

উল্লেখ্য, গত ১২ এপ্রিল মুরাদিয়া ইউনিয়ন বিএনপির ৭১ সদস্য বিশিষ্ট কার্যনির্বাহী কমিটি অনুমোদন দেয় উপজেলা বিএনপি’র আহ্বায়ক ও যুগ্ম আহ্বায়ক। ইউনিয়ন বিএনপির একাংশ নেতা-কর্মীর অভিযোগ ব্যক্তিগত এজেন্ডা বাস্তবায়নসহ স্থানীয় পর্যায়ের অনেক নেতা কর্মীকে অনুপস্থিত রাখার পাশাপাশি সিনিয়র নেতা-কর্মীদের অবমূল্যায়ন করে এ কমিটি করা হয়েছে।