• বৃহস্পতিবার   ০৯ ফেব্রুয়ারি ২০২৩ ||

  • মাঘ ২৭ ১৪২৯

  • || ১৭ রজব ১৪৪৪

আজকের পটুয়াখালী
ব্রেকিং:
উন্নত যোগাযোগ ব্যবস্থায় মানুষের ব্যয় কমবে : প্রধানমন্ত্রী ৩ রেলপথের ৬৯ কিলোমিটার উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী মুক্তিযুদ্ধের সঠিক ইতিহাস নতুন প্রজন্মের কাছে তুলে ধরুন নতুন ৩ রেলপথ উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী নানা ষড়যন্ত্র চক্রান্তে রাষ্ট্রপতি অটল থেকে দায়িত্ব পালন করেছেন রাষ্ট্রপতি হামিদের আত্মজীবনী ‘অমূল্য সম্পদ’: প্রধানমন্ত্রী ‘প্রমাণ করেছি, আওয়ামীলীগ আমলেই নির্বাচন নিরপেক্ষ হয়’ রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসনে বেলজিয়ামের সহযোগিতা চান রাষ্ট্রপতি বৃহস্পতিবার বাংলাদেশে রাষ্ট্রীয় শোক এসডিজি বাস্তবায়নে সরকার সর্বাত্মক প্রচেষ্টা চালাচ্ছে দেশকে দারিদ্রমুক্ত করতে শিক্ষিত জাতি অপরিহার্য: প্রধানমন্ত্রী পাসের হারে মেয়েরা এগিয়ে, ছেলেদের আরও মনোযোগী হতে হবে প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে বেলজিয়ামের রানির সৌজন্য সাক্ষাৎ তুরস্ক-সিরিয়ায় ভূমিকম্পে প্রাণহানির ঘটনায় রাষ্ট্রপতির শোক তিন ফসলি জমিতে প্রকল্প না নেওয়ার নির্দেশ প্রধানমন্ত্রীর দুই বছর পর সশরীরে শহীদ মিনারে যাবেন রাষ্ট্রপতি-প্রধানমন্ত্রী মোছলেম উদ্দিন দল ও দেশের জন্য নিবেদিত প্রাণ ছিলেন দেশের জনসংখ্যা বেড়ে ১৬ কোটি ৯৭ লাখ কে হচ্ছেন পরবর্তী রাষ্ট্রপতি, চূড়ান্ত হবে মঙ্গলবার অন্যের কাছে আমরা হাত পাতবো না: প্রধানমন্ত্রী

ডিসেম্বরকে বীর মুক্তিযোদ্ধা মাস ঘোষণার দাবি স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর

আজকের পটুয়াখালী

প্রকাশিত: ১ ডিসেম্বর ২০২২  

ডিসেম্বরকে বীর মুক্তিযোদ্ধা মাস হিসেবে ঘোষণার দাবি জানিয়েছেন স্বরাষ্টমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল। বৃহস্পতিবার বীর মুক্তিযোদ্ধা সমাবেশে এ দাবির কথা বলেন তিনি। ঢাকা জেলা ইউনিট কমান্ড ও মহানগর ইউনিট কমান্ড এ সমাবেশের আয়োজন করে।

আয়োজিত সমাবেশে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন মুক্তিযোদ্ধা বিষয়ক মন্ত্রী আ ক ম মোজাম্মেল হক। বীর মুক্তিযোদ্ধা আমির হোসেন মোল্লার সভাপতিত্বে আয়োজিত অনুষ্ঠানে প্রধান বক্তা ছিলেন সাবেক মন্ত্রী শাজাহান খান, ঢাকা জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি বেনজির আহমেদ। বক্তব্য দেন আগাখান মিন্টু, অবসরপ্রাপ্ত মেজর জেনারেল হেলাল মোর্শেদ খান, মাহবুব উদ্দিন আহমেদ, ওসমান আলী প্রমুখ।

এ সময় স্বরাষ্টমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল বলেন, আমাদের বীর মুক্তিযোদ্ধাদের দীর্ঘ দিনের প্রাণের দাবি ছিল বিজয়ের মাস ডিসেম্বরকে মুক্তিযোদ্ধা মাস হিসেবে ঘোষণা করার। আমি মুক্তিযোদ্ধা বিষয়ক মন্ত্রী আ ক ম মোজাম্মেল হকের প্রতি দাবি জানাবো, ডিসেম্বর মাসকে মুক্তিযোদ্ধা মাস হিসেবে যেনো ঘোষণা করা হয়।

তিনি বলেন, আমরা একটা সময় দেখতাম রাজাকার প্রধানের গাড়িতে জাতীয় পতাকা উড়ছে। এটা দেখে আমাদের মাথা নিচু হয়ে যেতো। আমাদের অপমান করা হয়েছিল, এমন সময় আলোকবর্তিকা হিসেবে আমাদের প্রধানমন্ত্রী আসলেন।

মন্ত্রী বলেন, এ দেশ বীর মুক্তিযোদ্ধার। যতদিন দেশ থাকবে ততদিন বঙ্গবন্ধু থাকবেন। আর কেউ যেনো আমাদের ইতিহাস বিকৃতি করতে না পারে। আমরা প্রধানমন্ত্রীকে ধন্যবাদ জানায় তিনি জয় বাংলা স্লোগানকে জাতীয় স্লোগান হিসেবে ঘোষণা দিয়েছেন। জয় বাংলা এমন এক স্লোগান, তার প্রকম্পে আতঙ্কিত হয়ে পড়তো পাকিস্তানি বাহিনীরা।